আজ ৭ কার্তিক ১৪২৬, মঙ্গলবার

নারীর ঐতিহ্য
- অধ্যাপক আব্দুস সালাম

আন্তর্জাতিক নারী দিবসে নারীদের কথা বলি,
নারীর মহিমা নিবেদন করি, ভরে পুষ্পাঞ্জলি।
আদিম পিতার পাঁজর হইতে সৃজিত আদিম মাতা,
কাদা-মাটি দিয়ে আদম সৃষ্ট, কি দিয়ে সৃষ্ট মাতা?
সেদিন হইতে হাওয়া ও আদম ভালোবাসে পরস্পরে,
হইল বিবাহ আদম-হাওয়ার সারা জীবনের তরে।
আদমকে খোদা তৈরী করেছেন খনখনে মাটি দিয়া,
হাওয়াকে তিনি তৈরী করেছেন আপন মহিমা নিয়া।

তাঁহারা দুজনে নন্দিত মনে করে জান্নাতে বাস,
ইবলিস এসে ধোলায় নিমেষে, এই ছিলো ইতিহাস।
খোদার গজব আসিয়া পড়িল আদম-হাওয়ার পরে,
জান্নাত হতে বিতাড়িত হয়ে এলো পৃথিবীর ঘরে।
হাওয়াকে ফেলিল জেদ্দায়, আদমেকে শরণ দ্বীপে,
সাড়ে তিন শত বছর কাঁদিল আল্লাহর সমীপে।
জান্নাতে ছিল আল্লাহর সাথে লেখা এক প্রিয় নাম,
উছিলায় যাঁর ক্ষমা হলো তাঁর পাইলো এ ফরমান।

ময়দান আরাফাতে আছে এক ছূড়া, জাবালে রহমত,
পাহাড়ে উঠিয়া পাইলেন তিনি বিবি হাওয়ার সাক্ষাৎ।
সেইদিন থেকে হাওয়ারে লইয়া আদমের বসবাস,
আদিম মানব-মানবীরে নিয়ে, এই ছিলো ইতিহাস।
নর ও নারী সম্প্রীতির সাথে করে যদি সংসার,
সুখের নিবিড় শান্তির নীড়, সুখময় সমাচার।
প্রতি সংসারে বলি বারেবারে অমনি যেন গো হয়,
জান্নাতি সুখ নামিয়া আসিবে সারাটি বিশ্বময়।

বিবি রহিমারে লইয়া সাদরে আয়ুব(আ) করেছে বাস,
শয়তান তারে পাকড়াও করে দিলো অন্তরে ত্রাস।
আল্লাহ যারে ভালোবাসে তারে কে পারে দিতে কষ্ট?
কেমন করিয়া প্রেমের দরিয়া করে দিতে পারে নষ্ট?
ক্ষণিকের তরে রাখিয়াছে ধরে শয়তানী সেই চক্র,
আল্লাহর মোহে পার পায় দোঁহে, হয়নি হৃদয় বক্র।
ইউছুফ-জুলেখা শাস্ত্রের লেখা, ভালোবেসে হলো ধন্য,
দুনিয়ার মোহে প্রীত নাহি হয়ে, হয়েছে মহতি গণ্য।

আল্লাহর শান রাখিয়া বিধান, বাড়াইলো সম্মান,
শিরি-ফরহাদের খোদার মেহের প্রেম হইলো অম্লান।
লাইলী-মজনুর প্রেম মঞ্জর করেছেন সেই দয়াময়,
এমন করিয়া পৃথিবী ভরিয়া, প্রেম রবে চির অক্ষয়।
স্মরিয়া তোমারি ফরিয়াদ করি বাঙালির মনে প্রেম দাও,
যত ভেদাভেদ হৃদয়ের খেদ সব কিছু তুমি মুছে দাও।
স্বাধীনতা পেয়ে বিমোহিত হয়ে, কেন এ দেশে সুখ নাই,
সুখ ও শান্তি পরম কান্তি, দাও মানবিক চেতনায়।

সংসদে চার প্রধান পদের তিনটি পদেই নারী,
কভু নারীকুল করিনিকো ভুল সকলেই সংসারী।
বিরধী দলের প্রধান হলেন, রওশন এরশাদ,
কক্ষনো তাঁর হয়নিকো হার, হয়নিকো অপবাদ।
শিরিন শারমীন চৌধুরী হন মহিলা স্পীকার,
ডক্টর তিনি সকলেই জানি, মাননীয়া সবাকার।
প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা, বঙ্গবন্ধুর মেয়ে,
সেই সুবাদে এগিয়ে নিলেন দেশকে সবার চেয়ে।
নারীই প্রেয়সী, নারী গরীয়সী, নরী মহীয়সী মাতা,
স্নেহময়ী নারী, অন্তরে তারি জন্ম নিয়েছে পিতা।

মন্তব্য যোগ করুন

কবিতাটির উপর আপনার মন্তব্য জানাতে লগইন করুন।

মন্তব্যসমূহ