আজ ৩ আষাঢ় ১৪২৬, রবিবার

জ্যৈষ্ঠ মাস
- অধ্যাপক আব্দুস সালাম

জ্যৈষ্ঠ মাসে কষ্ট আসে গুমটো গুমোট গরমের,
ধর্ম বলে ঘর্ম দোলে নগ্ন থাকা শরমের।
জ্যৈষ্ঠ খরায় ফুলকি ঝরায় অগ্নি বীনা বাজছে ঐ,
ঠান্ডা পানি যেটুক্ খানি খাচ্ছি ঝরে যাচ্ছে ঐ।

রোদ-গরমে যাচ্ছি দমে বাঁচার আশা বড়ই ক্ষীণ,
কেমন জানি হাসফাসানি অস্থিরতা রাত্রি দিন।
দারুণ তাপে পরাণ কাঁপে এবার বুঝি রক্ষা নেই,
কোথায় গেলে স্বস্তি মেলে শীতল পরশ কোথাও নেই?

সন্ধ্যা ক্ষণে আম্রবনে যাচ্ছি ছুটে উদোম গায়,
মন বোঝে না চোখ বুজে না উদাস মনে ভাবছি তাই।
পাইনে দিশা তাই সহসা ঈশান কোণে উঠছে মেঘ,
চিড়িক সেজে ঝিলিক মেরে আসলো ছুটে ঝড়ের বেগ।

মুসল ধারে বৃষ্টি ঝরে কড়কড়িয়ে দিচ্ছে ডাক,
বিভীষিকার মধ্য থেকে সদ্য শীতল পরশ পাক।
আসলো দলোক আসলো সলোক বাজ-বিজুলী মেঘ থেকে,
মেঘের ফাঁকে লুকিয়ে থাকে দোলন চাঁপার বাস মেখে।

জ্যৈষ্ঠ যেমন রুষ্ঠ তেমন উদার দাতা কয় তারে,
হাজার ফলের বাজার বসে সড়ক পথের দুই ধারে।
আম ও কাঁঠাল জাম-লিচু-তাল সবাই খেয়ে পেট ভরে,
দেশি ফলে বেশি ভিটামিন পাচ্ছি তা সুলভ দরে।

মন্তব্য যোগ করুন

কবিতাটির উপর আপনার মন্তব্য জানাতে লগইন করুন।

মন্তব্যসমূহ