আজ ৬ কার্তিক ১৪২৪, শনিবার

হৃদবিলাস
- নওশীন শিকদার

এখানে তার বাদামি চোখের মনি স্নাত রোদ্দুর এসে শুভসকাল বলে যায়না...
এখানে কপাটজুড়ে স্বপ্ন পোড়ানো অহং এর দাপট, তারই অজান্তে!
তবু ওই সবুজের রোমাঞ্চকর শ্বাসপ্রশ্বাস
ওই শখের ব্যালকনিতে ক্ষণিকের হৃদবিলাস
আমার বুকের গদি থেকে তাকে আসনচ্যুত করতে পারেনি।
নাবালিকা গ্লাডিওলাস ফুলসমগ্র বিষ্টি শেষে সুপুরুষ রৌদ্রে শরীর মেলেছে,
করিডোরের কিনারা ঘেঁষে তামাটে মাটির ফুলদানি...
গোলাপের ঝাড়ে প্রেম প্রেম গন্ধ
দোলনার ওপরে একজোড়া মানব-মানবী আলিঙ্গনরত শোপিস
অথবা স্নান শেষে নীলরঙা তোয়ালেটার অমন করে আমার চুলে জড়িয়ে থাকা...
সবই তার অস্তিত্ব ঘিরে স্বীকৃত বর্তমান।
আমার অস্তিত্ব কাঠকয়লায় আঁকা কোনো প্রাচীন ছবির নবজন্ম।
পোড়ামাটির ফলকে আমার কবিতাগুলো বাঁধিয়ে রাখবে কেউ একজন...
এমন স্বপ্নে অট্টহাসি কুড়ানোর অবসর নেই এখানে।
ঠোঁটে গুঁড়ো গুঁড়ো রঙ মাছরাঙার ডানা টপকে উপস্থিত।
একদিন হঠাৎ করেই বসার ঘরে তাকে দেখা যাবে পায়ের ওপর পা তুলে বসা অবস্থায়।
আমার অসহ্য অস্তিত্ব তাকে অসংলগ্ন করতে যাবেনা একদমই!
তারপর স্নানঘরের আয়নায় দেখা আবছায়া আমিটা
চড়ুইরঙা জানালার ফাঁক গলে উড়ে যাবো একদিন, তারই অজান্তে!

মন্তব্য যোগ করুন

কবিতাটির উপর আপনার মন্তব্য জানাতে লগইন করুন।

মন্তব্যসমূহ
মুহা. মোতালেব হোসেন
২১-০৯-২০১৬ ০৭:২০

অজান্তে কোথাও যাওয়া যাবে না । আছি তো আমি । খুব ভাল লাগলো । এফবি কষ্টের রাজা । আমন্ত্রন রইলো আমার প্রোফাইলে ।

শ্রী সুজন চন্দ্র র্শমা
২১-০৯-২০১৬ ০৮:৪৮

বানী গুলোঠিক আছে।কিন্ত পড়ে মজা পাওয়া য়ায়নি।