আজ ৬ আশ্বিন ১৪২৬, শনিবার

অপ্রাপ্তির প্রাপ্তি
- বনমালী - হিজিবিজি

গাহি যাতনার গান
অসময়ের ভালোবাসা ভিক্ষাবৃত্তি অযাচিত অপমান।
কত জ্ঞানী-গুনি,কবির কবিতায় ভালোবাসার ছিলো বাস,
কত সন্ন্যাসী বনে গেলো পাপী ভেঙে দিয়ে সন্ন্যাস।
আসলে কি ভালোবাসা সময়ে মিলে না সময়ে ভালোবাসা,
আগা মাথা তার খুঁজিতে যাইয়া কত প্রাণ আজ কোনঠাসা।
মর্ত্যের যত সুখ নিহিত সেই লোভ কিসে নিবারণ,
প্রেমে যেথায় মত্ত আদম হৃদয় তনু মন!
ছা-পোষা এক জীবন আমার সয়ে যাওয়া স্বভাব,
নিয়তি মানিয়া কত সুখক্ষণ ত্যাগেছি নাই অনুতাপ।

দমকা হাওয়ার মতো,
করে দিয়ে গেলে লন্ড ভন্ড পৃথিবী দেখেনি সে ক্ষত!
অপ্রাপ্তি নাকি প্রাপ্তি মেলায় ও সাব বুড়া বাত,
তোমারে লভিতে পোড়ানো যায় রোম,রক্তক্ষয়ী সংঘাত।
কাপুরুষ আমি নই ধরণীতে নইকো কোন মহান,
ভয় ডর মম ঈশ্বর সমীপে যিনি করেনি তোমারে দান।
অদৃশ্য এক পবিত্র শেকলে বাধা ছিলাম তুমি আমি,
ভালোবাসাটুকুই শুধু ছিলো হেথায় যাহা করেনি বিপথগামী।
তোমার লাগি বিদ্রোহী হতে আমারো তো কত সাধ,
কিন্তু নিজ যন্ত্রণা সহিবো পারবোনা তোমার অপবাদ।
একজীবনে আর কতটুকুই পায় মানব মনুষ্যজন,
অপ্রাপ্তির খাতায় তাইতো টুকিলাম, তুমি! প্রিয়জন!

এই যদি হয় শেষ-
আধপরিচিতা রহস্যময়ী রেখোনা দুঃখ, ক্লেশ।
তোমার অভাব যতটা দিবে লাঞ্চনা আমার প্রাণে,
যন্ত্রণা, বঞ্চনা সুর হয়ে ততো বাজবে আমার গানে।
হাসুক দেখে যাতনা আমার সুখের চাঁদ একফালি,
তোমার কোন বঞ্চনা হয়ে আর ফিরবে না সে বনমালী।

মন্তব্য যোগ করুন

কবিতাটির উপর আপনার মন্তব্য জানাতে লগইন করুন।

মন্তব্যসমূহ
বনমালী
১৯-০৫-২০১৯ ০৪:৩৯

ভালোবাসা হলো পৃথিবীর পবিত্রতম অনুভূতি, পবিত্রতম হৃদকরতাল। তুমি ভালো থেকো