আজ ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, সোমবার

রুদ্ধ দ্বারে বিবেক (একটি কুৎসিত কবিতা)
- এস আই তানভী

.
ম্যাডাম, আমি যদি লোভে পড়িয়া আপনার নিকটে
কভু যাই আপনে প্রশ্নপত্র চাহিতে কিংবা লইতে!
তখন কি করিবেন আপনি আমার সনে গোপন ঘটি'তে?
কহিবেন কি দেহের জ্বালা নিভাতে আপনার বিছানায় শুইতে?

বেটা ছেলে আমি, তবুও আদরে ছুঁইয়া দুই গাল
যৌন রসাতলে ডুবিয়া, হইয়া কামাতুর বেসামাল-
দিবেন কি হাত ছলে নাভী তলে আমার বিশেষ অঙ্গে?
দিবেন কি প্রতিশ্রুতি; রাখিবেন সাজাইয়া সুখের রঙে?

আপনি যদি আমার সনে করেন এমন আচরণ-
মানিয়া লইবো ওরে ম্যাডাম, পাপী একলা ঐ নুসরাত।
তাহা না হইলে দিবেন তো রায়! কহে যাহা আমার মন-
'করা হোক সিরাজের লিঙ্গচ্ছেদ; সে আজন্ম লম্পটের ওস্তাদ।'

শিক্ষানবিশ যাহারা, তাহারাই করিতে পারে ভুল বারো মাস
আজ দেখি হায়, এ কি! শিক্ষাগুরু করি যায় মহা সর্বনাশ,
আবার দেখি দোসর তাহাদের রহিয়াছে কতশত ভুরি ভুরি
বিচার দিবো কাহার কাছে? বিচারকই সত্যকে করি যায় চুরি।।
-------------------
১৫/০৪/১৯ইং

মন্তব্য যোগ করুন

কবিতাটির উপর আপনার মন্তব্য জানাতে লগইন করুন।

মন্তব্যসমূহ
এস আই তানভী
১৫-০৪-২০২০ ০৩:১২

কবিতা লিখতে গিয়ে ভাষা এবং শব্দ সাজাতে আমিও বারবার লজ্জায় স্তব্ধ হয়ে ছিলাম। কিন্তু না লিখেও পারলাম না। আর লিখার অনুপ্রেরণা যেখান থেকে পেয়েছি, তার একটা লিংকও প্রথম মন্তব্যের ঘরে দেওয়া রইলো। সুন্দর কাব্য সাহিত্যে কবিতার মূলভাব আঘাত করলে আমার কিছু যায় আসে না। তবে কারো বিবেকে আঘাত করে যদি প্রতিবাদের ভাষাকে অপরাজেয় ভাবে এগিয়ে নেবার অনুপ্রেরণা জোগায় একটু খানি, তাতেই সার্থকতা খুঁজে নেবো।